দুর্দান্ত ফর্মে থাকার পরেও যে কারনে আইপিএলের নিলাম থেকে বাদ পরছে দীনেশ কার্তিক

নিলামের দিনক্ষণ এখনও ঘোষণা করা হয়নি। তবে সরকারিভাবে সমস্ত ফ্র্যাঞ্চাইজিই জানিয়ে দিয়েছে, কোন কোন ক্রিকেটারকে তাঁরা আগামী মরশুমে রিটেন করবে। কেকেআর যেমন একাধিক তারকাকে নিয়ম মেনে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছে।

শুভমান গিল থেকে রাহুল ত্রিপাঠি, নীতিশ রানা, লকি ফার্গুসন-প্যাট কামিন্সরা জায়গা পাননি কেকেআরের রিটেনশন লিস্টে। ফ্র্যাঞ্চাইজির তরফে যে চার তারকাকে রিটেন করা হয়েছে, তাঁরা হলেন আন্দ্রে রাসেল, সুনীল নারিন, ভেঙ্কটেশ আইয়ার এবং বরুণ চক্রবর্তী।

আন্দ্রে রাসেলকে ১২ কোটি টাকায় ধরে রাখা হয়েছে। ভেঙ্কটেশ আইয়ার এবং সুনীল নারিনকে রিটেন করতে ফ্র্যাঞ্চাইজিকে খসাতে হয়েছে ৮ কোটি করে। বরুণ চক্রবর্তী আবার ৬ কোটি পেয়েছেন।তবে তালিকা থেকে বাদ পড়ার পরে সম্ভবত কেরিয়ার খতম হয়ে যেতে চলেছে দীনেশ কার্তিকের। এমনটাই সূত্রের খবর।

দীর্ঘদিন ধরে রান খরার মধ্যে রয়েছেন কার্তিক। কিছুদিন আগে শেষ হওয়া আইপিএলে একবারও ব্যাট হাতে জ্বলে উঠতে পারেননি তিনি। পরিসংখ্যান বলছে, আইপিএলের গোটা মরশুমে ১৬ ম্যাচ খেলে কার্তিক ২৩.৭৭ গড়ে করেছেন মাত্র ২২৩ রান। স্ট্রাইক রেটও তথৈবচ- ১৩১.২৮। একটাও ফিফটি হাঁকাতে পারেননি তিনি। শুধু গত মরশুমেই নয়, কয়েক মরশুম ধরেই ব্যাটিংয়ে চূড়ান্ত ব্যর্থ তিনি।

এছাড়া সাম্প্রতিককালে উইকেটকিপার হিসাবেও সেভাবে সক্ষমতার প্রমাণ দিতে পারছেন না তারকা। সিএসকের বিরুদ্ধে মোক্ষম সময়ে ফাফ দু প্লেসিসের স্ট্যাম্পিং মিস করে দলকে বিপদে ফেলেছিলেন তারকা। তারপরে ব্যাট হাতে প্রোটিয়াজ তারকা একাই কেকেআর বোলিং নিয়ে ছেলেখেলা করে যান।

উইকেটের সামনে এবং পিছনে চরম ব্যর্থতাতেই কেকেআর ৩৬ বছরে কেরিয়ারের উপান্তে হাজির হওয়া কার্তিককে রিলিজ করে যেন হাঁফ ছেড়ে বেঁচেছে।আপাতত তারকা উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যানের পরবর্তী গন্তব্য আইপিএলের নিলাম।

তবে কার্তিককে কিনতে কে কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজি আগ্রহী, এমন খবর নেই। এমনিতে নিলামের আগে তিনজন করে ক্রিকেটারকে সই করাতে পারে দুই নয়া ফ্র্যাঞ্চাইজি। সেখানে তো বটেই নিলামেও কার্তিককে আপাতত কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজির পরিকল্পনায় নেই। চূড়ান্ত ব্যর্থ হওয়ায় এর আগে গত মরশুমের মাঝপথে নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়া হয় কার্তিককে। নেতৃত্ব তুলে দেওয়া হয় ইয়ন মর্গ্যানের হাতে।

যাইহোক, সিএসকে এবং মুম্বই বাদে আইপিএলের তৃতীয় সফলতম ফ্র্যাঞ্চাইজি কেকেআর। নিলামে কীভাবে নিজেদের দল গোছায় তারা, সেটাই এখন দেখার।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.