ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথম বার লজ্জাজনক রেকর্ডে নিজের নাম লেখালেন বিরাট কোহলি

টি-২০ বিশ্বকাপের পর একটা বিরতি নিয়েছিলেন বিরাট কোহলি । দীর্ঘ ক্রিকেটের ধকল কাটানোর জন্য নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজ ও প্রথম টেস্ট খেলেননি তিনি।

দ্বিতীয় টেস্টের হাত ধরে ফিরলেন কোহলি। কিন্তু কোহলির এহেন প্রত্যাবর্তন মোটেই সুখকর হল না, উল্টে লজ্জার ইতিহাসে নিজের নাম লেখালেন তিনি। কোহলি যা করলেন তা এর আগে কোনও ভারত অধিনায়ক করেননি!

মুম্বইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে শুরু হয়েছে ভারত-নিউজিল্যান্ড চলতি দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় তথা অন্তিম ম্যাচ। কোহলি টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন।

৮০ রানে তিন উইকেট পড়ে যাওয়ার পর কোহলি নামেন চারে। চার বল খেলার পরেই আজাজ প্যাটেলের বলে তিনি এলবিডব্লিউ হয়ে যান। কোনও রান না করেই আউট হন তিনি।

কোহলি অনফিল্ড আম্পায়ার অনিল চৌধুরির সিদ্ধান্ত প্রথমে মেনে নেননি। তিনি রিভিউ নেন। কিন্তু তাতেও কোনও কাজ হয়নি। টিভি আম্পায়ার জানিয়ে দেন মাঠের আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই তিনি বহাল রাখছেন।

এরপর কোহলি আম্পায়ারের সঙ্গে খানিক কথা বলেন। হতাশ হয়ে মাঠ ছেড়ে হাঁটা লাগান সাজঘরের দিকে। কোহলি সাপোর্ট স্টাফের ল্যাপটপে গিয়েও রিপ্লে দেখেন।

শূন্যের লজ্জাজনক রেকর্ডে নাম লেখালেন কোহলি। ঘরের মাঠে সর্বাধিক ডাক হওয়ার নজির গড়লেন তিনি। এই নিয়ে টেস্ট কেরিয়ারে ৬ বার শূন্য করলেন তিনি।

এর আগে মনসুর আলি খান পতৌদি ৫ বার ডাক হয়েছিলেন। এরপর রয়েছেন কপিল দেব ও এমএস ধোনি । ৩ বার ডাক হয়েছেন দুজনেই। এছাড়া কোহলি প্রথম ভারত অধিনায়ক যিনি দেশ ও বিদেশ মিলিয়ে ১০ বার ডাক হয়েছেন।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.