অবশেষে পদ্মাসেতুর সড়কপথ পেল পুর্নাঙ্গ রূপ

এগিয়ে চলা স্বপ্নের পদ্মা সেতুর নির্মান কাজ এবার আরো একধাপ এগিয়ে গেল। সেতুর রেলওয়ে স্লাব বাসানোর পর এবার শেষ হলো রোডওয়ে স্লাব বসানোর কাজ। এতে ৬ দশমিক ১৫ কিলোমিটার সেতুতে পূর্নাঙ্গতা পেল সড়ক পথ। সেতুর মোট ২হাজার ৯১৭টি রোডওয়ে স্লাবের মধ্যে বসে গেছে ২ হাজার ৯১৭টি।

সোমবার (২৩ আগস্ট) সকালে শেষ ১টি স্লাব বসানোর মধ্য দিয়ে রোডওয়ে স্লাবের পূর্নাঙ্গতা হলো ৬.১৫ কিমি। অর্থাৎ শেষ হলো পদ্মা সেতুর রোডওয়ে স্লাব বসানোর কাজ। পদ্মা সেতু প্রকল্পের নির্বাহী প্রকৌশলী দেওয়ান আব্দুল কাদের এসব তথ্য নিশ্চিত করেছে।

নির্বাহী প্রকৌশলী জানান, আজ ১টি রোডওয়ে স্লাব বসানো হল। সেতুর ১২ ও ১৩নং পিয়ারের স্প্যানে বসানো হলো শেষ ১টি রোডওয়ে স্লাব। রাতেই ২টি স্লাব বসানো হয়েছে।

এদিকে এর আগে চলতি বছরের গত ২০ই জুন শেষ হয়েছিলো দ্বিতলা সেতুর রেলওয়ে স্লাব বসানোর কাজ।

অপরদিকে প্রকৌশলী সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের জুলাই মাস পর্যন্ত সেতু প্রকল্পের সার্বিক কাজ এগিয়েছে ৮৭ দশমিক ২৫ শতাংশ। আর মূল সেতুর কাজের অগ্রগতি ৯৪ দশমিক ২৫ শতাংশ। অর্থাৎ মূল সেতুর কাজের আর বাকি মাত্র ৫ দশমিক ৭৫ শতাংশ।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ডিসেম্বরে পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শুরু হয়। ২০১৭ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর ৩৭ ও ৩৮ নম্বর খুঁটিতে প্রথম স্প্যান বসানোর মধ্য দিয়ে দৃশ্যমান হয় পদ্মা সেতু। এরপর একে একে ৪২টি পিলারে ১৫০ মিটার দৈর্ঘ্যের ৪১টি স্প্যান বসিয়ে ছয় দশমিক ১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ পদ্মা সেতু পুরোপুরি দৃশ্যমান হয়েছিলো ২০২০ সালের ১০ ডিসেম্বর। একইসঙ্গে চলতে থাকে রোডওয়ে, রেলওয়ে স্ল্যাব বসানোসহ অন্যান্য কাজ। ২০২২ সালের জুন মাসের মধ্যেই এই সেতু যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়ার কথা রয়েছে।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.